1. shahalom.socio@gmail.com : admin :
  2. smds69@gmail.com : কারেন্ট নিউজ : কারেন্ট নিউজ
সোমবার, ১৮ জানুয়ারী ২০২১, ১২:৪১ অপরাহ্ন

রায়পুরে মা’কে গলাকেটে হত্যা; আদালতে ছেলের স্বীকারোক্তি

  • আপডেট করা হয়েছে রবিবার, ৩০ আগস্ট, ২০২০
  • ২৮৩ বার পড়া হয়েছে

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ
লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে মাদকাসক্ত ছেলে গলাকেটে মা’কে হত্যার ঘটনায় আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছে।
আজ রবিবার (৩০ আগস্ট) বিকেলে লক্ষ্মীপুর চীফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দিতে মাকে হত্যার দায় স্বীকার করেন ঘাতক ছেলে।

জবানবন্দিতে জাফর জানান, সেদিন আমি বাবার কাছ থেকে ১০ টাকা নিয়ে চা খেয়ে এসে একটু আরাম করে ঘুমাচ্ছিলাম ঠিক এই মূহুর্তে আমার মা আমার সাথে চিৎকার চেঁচামেচি আরম্ভ করে। এতেই আমি ক্ষিপ্ত হয়ে হাতের কাছে থাকা ধারালো অস্ত্র (দা) দিয়ে মাকে উপর্যুপরি ৮/১০ কোপ দিলেই তিনি ঘটনাস্থলে মৃত্যু বরন করেন।

আদালতের বরাত দিয়ে রায়পুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবদুল জলিল জবানবন্দি গ্রহণের বিষয়টি এ প্রতিবেদককে নিশ্চিত করেন ।

মা’কে হত্যা করার সাথে সাথেই মাদকাসক্ত ছেলে জাফর হোসেনকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে স্থানীয় জনগন।

শুক্রবার (২৮ আগস্ট) সকালে রায়পুর উপজেলার সোনাপুর গ্রামের রাখালিয়া মানতি সর্দার বাড়িতে এ হত্যাকান্ডের ঘটনাটি ঘটে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, কবিরাজ হোসেন আলীর ছেলে জাফর হোসেন দেশীয় অস্ত্র দা দিয়ে কুপিয়ে তার মাকে হত্যা করে। এ সময় ঘরে জাফর ও তার মা নিহত শেফালী বেগম ছাড়া আর কেউ ছিলেন না।

এক পর্যায়ে ঘাতক জাফরের বড় ভাই জসিমের স্ত্রীর শৌর চিৎকারে আশপাশের লোকজন এসে জাফরকে আটক করে। ততক্ষনে শেফালী বেগম শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।
একইদিন শুক্রবার বার দুপুরে শেফালী বেগম’র মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য লক্ষ্মীপুর সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়।

এদিকে আজ সকালে লক্ষ্মীপুর জেলা পুলিশ সুপার ড. এ,এইচ,এম কামরুজ্জামান পি,পি,এম হত্যাকান্ডের ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। এ সময় অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সহকারী পুলিশ সুপার স্পিনা রাণী প্রামাণিক, রায়পুর থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আব্দুল জলিল, ওসি তদন্ত শিপন বড়ুয়া প্রমূখ।

সংবাদটি শেয়ার করুন

কমেন্ট করুন

আরো সংবাদ পড়ুন